BARTALIPI, বার্তালিপি , Bengali News, Latest Bengali News, Bangla Khabar, Bengali News Headlines, বাংলা খবর
Sunday, 28 Feb 2021  রবিবার, ১৬ ফাল্গুন ১৪২৭
Bartalipi, বার্তালিপি, Bengali News Portal, বাংলা খবর

BARTALIPI, বার্তালিপি , Bengali News, Latest Bengali News, Bangla Khabar, Bengali News Headlines, বাংলা খবর

বাংলা খবর

বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় বাংলা নিউজ পোর্টাল

চিকিৎসা ভিসা নিয়ে ধর্মীয় প্রচার, বাংলাদেশি মুফতি আটক করিমগঞ্জে

Bartalipi, বার্তালিপি, চিকিৎসা ভিসা নিয়ে ধর্মীয় প্রচার,  বাংলাদেশি মুফতি আটক করিমগঞ্জে

চিকিৎসা ভিসা নিয়ে আসামে এসে ধর্মীয় প্রচারে অংশ নেওয়ায় এক বাংলাদেশি মুফতিকে আটক করেছে করিমগঞ্জ পুলিশ। আগামী দু-একদিনের মধ্যে তার পাথারকান্দিতে একটি ধর্মীয় সভায় অংশ নেওয়ার কথা ছিল। আগাম খবর পেয়ে তাকে আটক করে পুলিশ। এমনকি ভিসা আইন লঙ্ঘনের অভিযোগে তাকে নিজ দেশে ফেরত পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার সাংবাদিক সম্মেলন ডেকে খবরটি জানিয়েছেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পংকজ যাদব। 

মেডিক্যাল সহ ট্যুরিস্ট ভিসা নিয়ে ভারতে এসে শাহিনবাগ আন্দোলনে অংশ নিয়েছিল বাংলাদেশ, আফগানিস্তান সহ একাধিক দেশের বাসিন্দারা। খবরটি প্রকাশ্যে আসতেই নড়েচড়ে বসে সরকার। এদেরকে শনাক্ত করে একেএকে নিজ নিজ দেশে ফেরত পাঠিয়ে দেওয়া হয়। তবে এখনও এমনতর ঘটনা ঘটে চলছে ভারতে। মেডিক্যাল ভিসার আড়ালে ভারতে এসে ধর্মীয় প্রচারে লিপ্ত হয়ে পড়ছেন একাংশ বাংলাদেশি মুফতি।
বৃহস্পতিবার করিমগঞ্জে এমন একটি ঘটনা প্রকাশ্যে এসেছে। মেডিক্যাল ভিসা নিয়ে এসে ধর্মীয় প্রচারে লিপ্ত হওয়ায় বৃহস্পতিবার  পুলিশ আটক করেছে মুফতি হোসেন মহম্মদ সিদ্দিকিকে। এমন-কি আটক করার পরই বাংলাদেশ ফেরত পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। এ দিন, রাতে সাংবাদিক সম্মেলন ডেকে খবরটি জানিয়েছেন পংকজ যাদব৷ বলেন, মুফতি হোসেন মহম্মদ ২ফেব্রুয়ারি মেডিক্যাল ভিসা নিয়ে ভারতে এসেছে। কিন্তু এরপর থেকে সে নিম্ন অসম সহ বরাক উপত্যকায় ধর্মীয় জনসভায় অংশ নিতে শুরু করে। এরই মধ্যে পাথারকান্দিতে একটি ধর্মীয় সভা করার কথা ছিল তার। আগাম খবর পেয়ে তাকে আটক করা হয়েছে। এমন-কি এদিনই তাকে বাংলাদেশে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। সে বাংলাদেশের ব্রাহ্মনবাড়িয়া এলাকার বাসিন্দা বলে জানান এএসপি পংকজ। এর বেশি কোনো তথ্য দিতে রাজি হননি তিনি৷
এদিকে একটি সূত্রে জানা গেছে, মুফতি হোসেন মহম্মদ পশ্চিমবঙ্গের হরিদাসপুর সীমান্ত দিয়ে ভারতে প্রবেশ করেছে। পরে সোজা চলে আসে অসমে। মেডিক্যাল ভিসা নিয়ে ভারতে আসলেও তার সঙ্গে ভারতীয় কোনও ডাক্তারের প্রেসক্রিপশন পাওয়া যায়নি বলে জানা গেছে ওই সূত্র মারফত।