BARTALIPI, বার্তালিপি , Bengali News, Latest Bengali News, Bangla Khabar, Bengali News Headlines, বাংলা খবর
Wednesday, 21 Apr 2021  বুধবার, ৭ বৈশাখ ১৪২৮
Bartalipi, বার্তালিপি, Bengali News Portal, বাংলা খবর

BARTALIPI, বার্তালিপি , Bengali News, Latest Bengali News, Bangla Khabar, Bengali News Headlines, বাংলা খবর

বাংলা খবর

বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় বাংলা নিউজ পোর্টাল

কৃষি আইনের বিরুদ্ধে আজ ১২ ঘন্টার ভারত বনধ, মাঠে ১২ টি ট্রেড ইউনিয়ন

Bartalipi, বার্তালিপি, কৃষি আইনের বিরুদ্ধে আজ ১২ ঘন্টার ভারত বনধ, মাঠে ১২ টি ট্রেড ইউনিয়ন

কৃষকের স্বার্থবিরোধী কর্পোরেটপন্থী কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে ৮ ডিসেম্বর মঙ্গলবার সারা ভারত কৃষক মোর্চার ডাকা ভারত বনধকে শিলচর তথা কাছাড় জেলায় পূর্ণ সমর্থন জানাচ্ছে বারোটি শ্রমিক কর্মচারী কৃষক সংগঠন। মঙ্গলবার ভোর ৫ টা থেকে সন্ধে ৫ টা পর্যন্ত কাছাড় জেলায় বনধ সফল করতে সবকটি সংগঠনের সদস্য গ্রাম-শহরের পথে নামবেন। সোমবার শিলচরের সাংবাদিক সম্মেলন ডেকে এ খবর জানিয়ে দেন শ্রমিক কর্মচারী সংগঠন গুলির সদস্যরা।

সিটু-র পক্ষে বর্ষীয়ান সিপিএম নেতা সমীরন আচার্য ক্ষোভ উগরে দিয়ে বলেন, মোদি সরকারের জোর করে আনা দুটি কৃষি আইন এবং একটি অত্যাবশ্যকীয় পণ্য আইন সম্পূর্ণভাবে কৃষকদের স্বার্থ বিরোধী। এই আইন গুলি বাস্তবায়িত হলে কৃষকরা উৎপাদিত ফসলের কোনও মূল্য পাবেন না।  মূল্যের নিয়ন্ত্রণ পুরোপুরি চলে যাবে কর্পোরেট গোষ্ঠীর হাতে। এর ফলে দেশে খাদ্য সংকট সৃষ্টি হবে। না খেয়ে মরতে হবে দেশের কৃষক সম্প্রদায়কে। কৃষক, শ্রমিক ও মধ্যবিত্তের জীবন বিরোধী এই আইন বাতিলের দাবিতে শিলচর  তথা কাছাড়েও জোরদারভাবে বনধ পালিত হবে। এমনকি বন্ধ বাতিল করতে বল প্রয়োগ করা হলে তাও প্রতিরোধ করবেন পিকেটাররা।

সাংবাদিক সম্মেলনে শ্রমিক-কর্মচারী শিক্ষক সমন্বয় সমিতির পক্ষ থেকে রঞ্জন দাস জানান, মোদি সরকারের ৬ বছরের শাসন ক্ষমতার সময়ের মধ্যে এই প্রথম দাবি আদায়ে দেশজুড়ে এককাট্টা হয়েছেন অন্নদাতা কৃষকরা। সরকার একতরফা ভাবে কৃষকদের কোনও মতামত না নিয়ে গায়ের জোরে কৃষি বিল পাস করেছে যা সম্পূর্ণ অগণতান্ত্রিক। ফলে এই আন্দোলন শ্রমিক কৃষক ও মধ্যবিত্ত মানুষের বাঁচা-মরার আন্দোলন। এই মুহূর্তে ট্রেড ইউনিয়ন গুলি কৃষকদের পাশে না দাঁড়ালে দেশ বাঁচানো যাবেনা। কাছাড় জেলার সাধারণ জনগণকে বনধ সমর্থন করে এতে পুরোপুরি শামিল হওয়ার আহ্বান জানিয়ে রঞ্জন দাস আরও বলেন, ফসল উৎপাদনে যদি কৃষকদের অধিকারই না থাকে, কী ফসল তারা উৎপাদন করবেন, তা নির্ধারণ করার ক্ষমতা যদি কৃষকদের না থাকে তাহলে জীবন বিপন্ন হবে কৃষকদের। তাই কৃষকদের এই দুর্দিনে গোটা দেশবাসীর তাদের পাশে দাঁড়ানো উচিত। এই ভাবনা থেকেই শুধুমাত্র জরুরি পরিষেবা বাদ দিয়ে কাছাড় জেলায় বনধ পালন করবে সিআইটিইউ, আইএনটিইউসি, এআইটিইউসি, এআইইউটিইউসি, টিইউসিসি, এআইসিসিটিইউ, এআইকেএস, টিইউসিসি কাছাড়, এনটিইউআই, ইডবলুটিসিসি, এএমএসইউ এবং এবং এফএসএইচ।